করোনা ভাইরাসে বৃদ্ধদের মৃত্যু ঝুঁকি বেশি, আমাদের করণীয়

প্রকাশিতঃ ৫:২৮ অপরাহ্ণ, শুক্র, ১৩ মার্চ ২০

ডাক্তার আঞ্জুমান আরা তামান্না

আমাদের দেশেও ইদানিং করোনা ভাইরাসের প্রভাব দেখা যাচ্ছে। তাই এ ভাইরাস সম্পর্কে জানা খুবই জরুরী।

করোনা ভাইরাসের লক্ষণ সমূহ: জ্বর, কাশি, শ্বাসকষ্ট, নিউমোনিয়া, ব্রঙ্কাইটিস।

COVID-19 এই ভাইরাসটি দিয়ে রোগটি হয়ে থাকে। এখন পর্যন্ত দেখা গেছে করোনায় আক্রান্ত হয়ে যারা মারা গেছেন তাদের বেশির ভাগের বয়স ৭০ বছরের বেশি। যাদের ডায়াবেটিস, হৃদরোগ, হাঁপানী রোগ আছে তারাই বেশি আক্রান্ত এবং মৃত্যুর ঝুঁকিতে আছেন। এছাড়া যারা ক্যান্সারে আক্রান্ত অথবা যাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম তাদের ঝুঁকি সবচেয়ে বেশি। এছাড়াও সব বয়সী মানুষই করোনা ভাইরাস দ্বারা আক্রান্ত হতে পারেন।

যেহেতু এর কোন প্রতিশেধক অথবা টিকা এখনও আবিষ্কৃত হয়নি তাই প্রতিরোধই একমাত্র উপায়।

বয়স্ক ও যারা ঝুঁকিতে আছেন তাদের এই সময় খুবই সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। এই সময় তাদের বাইরে ঘোরাফেরা না করা, কোন অনুষ্ঠানে না যাওয়া, জনসমাগম বা গণপরিবহন এড়িয়ে চলাই ভালো। পরিবারের অন্যান্য সদস্যদের উচিত পরিবারের বয়োজ্যেষ্ঠ ব্যক্তিটির প্রতি এই সময় একটু বেশি খেয়াল রাখা। বারবার হাত ধোয়া এবং মাস্ক ব্যবহারে উৎসাহিত করা।

এছাড়া অনিয়ন্ত্রিত ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখতে হবে। হৃদরোগ থাকলে ডাক্তারের পরামর্শ গ্রহণ করা। যেকোন লক্ষণ দেখা দিলে সাথে সাথে চিকিৎসকের পরামর্শ গ্রহণ করা।

পরিশেষে বলতে চাই- করোনা ভাইরাস থেকে পরিত্রাণের একমাত্র উপায় নিজে সচেতন থাকা অন্যকে সচেতন করা।

লেখিকা: প্রাক্তন রেজিস্ট্রার (ধাত্রীবিদ্যা ও স্ত্রীরোগবিদ্যা বিভাগ)। শহীদ মনসুর আলী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ