‘চীনকে উচিত শিক্ষা দেওয়া হয়েছে’

প্রকাশিতঃ ১২:০১ অপরাহ্ণ, শনি, ২০ জুন ২০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : লাদাখ সীমান্তে সংঘাতে ২০ সেনা নিহত হলেও চীনকে উচিত শিক্ষা দেওয়া হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

সীমান্ত পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার জন্য শুক্রবার আয়োজিত সর্বদলীয় বৈঠকে এ মন্তব্য করেন তিনি। ভার্চুয়াল এই বৈঠকে দেশটির গুরুত্বপূর্ণ প্রায় সব বিরোধী দলের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে মোদি বলেন, ‘আমাদের ২০ জন সেনা মারা গেছেন। কিন্তু ভারত মাতাকে যারা এই স্পর্ধা দেখিয়েছে, তাদের উচিত শিক্ষা দেওয়া হয়েছে।’ খবর এনডিটিভির

প্রধানমন্ত্রী মোদি বলেন, ‘ভারতীয় ভূখণ্ডে চীনা সেনা ঢুকতেই পারেনি। কোনও সেনা চৌকিও দখল হয়নি। আমি আপনাদের আশ্বস্ত করতে চাই এই বলে যে, দেশকে রক্ষা করার জন্য় যা যা করার দরকার, তা করছে ভারতীয় সেনা। এখন আমাদের কাছে এতটাই শক্তি আছে যে কেউ আমাদের এলাকার এক ইঞ্চিও দখল করতে পারবে না।’

চীনকে তাদের অবস্থান বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে জানিয়ে মোদি বলেন, এখন আমাদের সশস্ত্র বাহিনীকে যেকোন পদক্ষেপ নেওয়ার অনুমতি দিয়েছি। কূটনৈতিকভাবেও আমরা চীনকে নিজেদের অবস্থান পরিষ্কার করে বুঝিয়ে দিয়েছি। নিজেদের সার্বভৌমত্ব রক্ষা করে তবেই ভারত শান্তি ও বন্ধুত্ব চায়।

উল্লেখ্য, গত সোমবার লাদাখ সীমান্তে ভারত ও চীনা সেনারা সংঘাতে জড়ায়। ওই সংঘাতে অন্তত ২০ ভারতীয় সেনা নিহত হওয়ার কথা জানায় দিল্লি। তবে চীনের পক্ষ থেকে হতাহতের কোনও তথ্য প্রকাশ করা হয়নি। দুই পক্ষই পরস্পরের বিরুদ্ধে অনুপ্রবেশের অভিযোগ তুলেছে।

সময় জার্নাল/

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।