জার্মানিতে খুলছে দোকানপাট

প্রকাশিতঃ ৩:১৮ অপরাহ্ণ, সোম, ২০ এপ্রিল ২০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস নিয়ন্ত্রণে বলে দাবি করেছেন জার্মান রাজনীতিবিদরা। এ প্রেক্ষাপটে সোমবার দেশটির কিছু এলাকায় ছোটখাট দোকানপাট খুলে দেয়া হচ্ছে।

গত মাসে শুরু হওয়া কঠোর নিয়ন্ত্রণ শিথিল করার অংশ হিসেবে এসব দোকান খুলে দেয়ার অনুমোদন দেয়া হয়েছে। গত সপ্তাহে চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মার্কেল ও রাজ্য প্রধানরা এ সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেছিলেন।

করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় প্রশংসিত মার্কেল এখন ভঙ্গুর জার্মান অর্থনীতিকে পুনরুজ্জীবিত করার আশায় পদক্ষেপ নিচ্ছেন।

দেশটিতে কোভিড-১৯ তীব্রভাবে আঘাত হানলেও খুব দ্রুতই ঘুরে দাঁড়াতে পেরেছে। দেশটিতে রোববার পর্যন্ত করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১৩৯,৮৯৭ জন এবং মারা গেছে ৪,২৯৪ জন।

শুক্রবার জনস্বাস্থ্য বিষয়ক রবার্ট কোচ ইনস্টিটিউট ঘোষণা করেছে, প্রথমবারের মতো সংক্রমণের হার এক এর নীচে নেমে এসেছে। এ কারণে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জেনস্ স্পেন ভাইরাস নিয়ন্ত্রণে থাকার দাবি করেছেন।

তবে, ভাইরাস নিয়ন্ত্রণে এলেও স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে আরো অনেক সময় লাগবে বলে সতর্ক করেন ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভ পার্টির আরমিন লাশেট। তিনি নর্থ রাইন ওয়েস্টফালিয়ার রাজ্য প্রধান।

স্পাইগেল উইকলি’র সাথে এক সাক্ষাতকারে তিনি বলেন, কিছু বিধিনিষেধ ২০২১ সাল পর্যন্ত বলবৎ থাকবে।

তবে, আগামী সপ্তাহগুলোতে স্কুলসমূহ আংশিক খুলে দেয়া হবে। সবচেয়ে বেশি করোনা আক্রান্ত বাভারিয়ায় আরো পরে স্কুল খোলা হবে।

দু’জনের বেশি লোকের একত্র হওয়া এবং একজন থেকে আরেকজনের ১.৫ মিটার দূরত্বে থাকার নিয়ম বলবৎ থাকবে বলে জানান লাশেট।

বিভিন্ন কালচারাল ভেন্যু, বার, অবকাশ যাপন কেন্দ্র, বিউটি স্যালুন একটা নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। এছাড়া বড়ো ধরণের জনসমাবেশ হয় এমন ধরণের অনুষ্ঠান যেমন কনসার্ট কিংবা ফুটবল খেলা ইত্যাদির ওপর নিষেধাজ্ঞা আগামী ৩১ আগস্ট পর্যন্ত কার্যকর থাকবে।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ