ডিজিটাল বাংলাদেশ চায় না বিএনপি : সেতুমন্ত্রী

প্রকাশিতঃ ৬:৪২ অপরাহ্ণ, শনি, ১১ জানুয়ারি ২০

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি বলেছেন, বিএনপি ডিজিটাল বাংলাদেশ চায় না। তারা চায় এনালগ বাংলাদেশ। বাংলাদেশকে পিছিয়ে রাখতে চায়। শনিবার দুপুরে জেলার সৈয়দপুর উপজলা শহরের ফাইভ স্টার মাঠে আওয়ামী লীগের উদ্যোগে শীতার্ত মানুষের মধ্যে কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন সেতুমন্ত্রী।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ইভিএমের ব্যবহার নিয়ে তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশন (ইসি) এ বিষয়ে যে সিদ্ধান্ত নেবে আমরা সেটাতেই রাজি। কোন বিষয়েই আমরা ভীত নই।

তিনি আরো বলেন, ইভিএম একটি আধুনিক নির্বাচন ব্যবস্থা। কিন্তু নির্বাচনের আগেই বিএনপি ইভিএম নিয়ে প্রশ্ন তুলছে। ভোটের নিরপেক্ষতা নিয়ে প্রশ্ন তুলছে। ভোট অনুষ্ঠানের আগেই নির্বাচনের নিরপেক্ষতা নিয়ে কিভাবে প্রশ্ন তোলা হয়- তা কারোই বোধগম্য নয়।

আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হকের সভাপতিত্বে সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, ত্রাণ ও দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান এমপি, দলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, রাবেয়া আলীম এমপি, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি দেওয়ান কামাল আহমেদ ও সাধারণ সম্পাদক মমতাজুল হক।

বিএনপির রাজনীতি ক্ষমতার রাজনীতি, তারা জনগণের রাজনীতি করেন না উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের কাদের বলেন,‘বিএনপি গরীবের দল নয়, লুটেরা কোটিপতির দল। এ কারণে তাদের রাজনীতিতে এখন সবখানে খরা চলছে। কি নির্বাচন, কি আন্দোলন কোথাও বিএনপির জনসমর্থন নেই।’

তিনি আরো বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর কন্যা শেখ হাসিনার সরকার গরীবের সরকার। যে কোন দুর্যোগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আপনাদের পাশে আছেন, ভবিষ্যতেও থাকবেন। শীতে বন্যায় কষ্ট পেলেও বিএনপি মানুষের পাশে আসেন না। তারা ঢাকায় বসে নালিশ করেন।’

দলীয় সূত্র জানানো হয়, দেশের উত্তরাঞ্চলের রংপুর বিভাগের আট জেলায় আওয়ামী লীগের উদ্যোগে ৫০ হাজার কম্বল বিতরণ করা হবে।

অনুষ্ঠানে এসব কম্বল জেলা নেতৃবৃন্দের হাতে তুলে দিয়ে ওই অনুষ্ঠানে ৩ হাজার কম্বল বিতরণ করেন সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ