বিএসএমএমইউ-তে হবে করোনার শনাক্তকরণ পরীক্ষা ও চিকিৎসা

প্রকাশিতঃ ৫:২৯ অপরাহ্ণ, শনি, ২৮ মার্চ ২০

খুব শীঘ্রই করোনা শনাক্তকরণ পরীক্ষা এবং আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসাসেবা কার্যক্রম শুরু হতে যাচ্ছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ)। এ লক্ষ্যে সংশ্লিষ্ট চিকিৎসক-নার্সদের প্রশিক্ষণসহ তাঁদের সুরক্ষার ব্যবস্থাসহ নানা বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে শনিবার জরুরি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের ডা. মিল্টন হলে।

সভায় সভাপতিত্ব করেন বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া। সভায় উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ডা. সাহানা আখতার রহমান, উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. মুহাম্মদ রফিকুল আলম, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ আতিকুর রহমান-সহ সংশ্লিষ্ট ডীন, বিভিন্ন বিভাগের চেয়ারম্যান, অধ্যাপক, রেজিস্ট্রার, প্রক্টর, পরিচালক (হাসপাতাল) অংশ নেন।

সভায় করোনা ভাইরাস পরিস্থিতি মোকাবেলায় দ্রুত পরীক্ষা-নিরীক্ষা কার্যক্রম শুরু করা, রোগীদের সেবা প্রদান, প্রশিক্ষণ দান, হেল্প লাইন চালু করা, করোনা রোগী ছাড়াও অন্যান্য রোগীদের চিকিৎসাসেবা কার্যক্রম অব্যাহত রাখা ইত্যাদি বিষয়ে বিস্তারিত গুরুত্বের সাথে আলোচনা করা হয়।

সভায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়া বলেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে চিকিৎসক সমাজ ও চিকিৎসা পেশার সাথে সংশ্লিষ্টরা বর্তমানে যুদ্ধে অবতীর্ণ হয়েছি। সবকিছু উপেক্ষা করে জীবনকে বাজি রেখে চিকিৎসক সমাজ হিরোর মতো করোনা যুদ্ধকে মোকাবেলা করবে- এটাই আমার অনুরোধ। সংশ্লিষ্ট সকলে দায়িত্বশীল ও যথাযথ ভূমিকা পালন করলে এই সঙ্কট অবশ্যই কাটিয়ে উঠতে পারবো।

উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. মুহাম্মদ রফিকুল আলম বলেন, আমাদের ছুটি নাই। করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় আমরা যুদ্ধে নেমেছি। করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে চলমান এই যুদ্ধে চিকিৎসক সমাজ অবশ্যই জয়ী হবে বলে আমার বিশ্বাস।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ