সরকার রাষ্ট্র পরিচালনায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছে: মওদুদ

প্রকাশিতঃ ২:৩৮ অপরাহ্ণ, বৃহঃ, ২১ নভেম্বর ১৯

নিউজ ডেস্ক: সরকার রাষ্ট্রপরিচালনায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেছে মন্তব্য করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমেদ বলেন, বিরোধী দলকে দমন করতে যেয়ে দেশের সব মানুষের সুখ শান্তি নষ্ট করে দিয়েছে সরকার। মানুষের মনে শান্তি নেই। একটার পর একটা সংকট দেখা দিচ্ছে। দেশের বর্তমান অবস্থা দেখে মনে হয় এই সরকার রাষ্ট্র পরিচালনায় সব নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেছে।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ৫৫তম জন্মদিন উপলক্ষে তার সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনায় এক মিলাদ ও দোয়া মাহফিলে তিনি এ মন্তব্য করেন।

তারেক রহমানের নেতৃত্বের প্রশংসা করে সাবেক আইনমন্ত্রী মওদুদ বলেন, শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের যেসব গুণ ছিল সেসব গুণের অনেকগুলোই তারেক রহমানের মধ্যে দেখতে পাই। তারেক রহমানের চিন্তা ধারায়, আচার-আচরণে, চলাফেরায় জিয়াউর রহমানের প্রতিচ্ছবি দেখা যায়। তিনি আগামী দিনে বাংলাদেশের রাষ্ট্রনায়কের ভূমিকা পালন করে এই দেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাবেন, এই প্রত্যাশাই আমাদের সবার।

রাজনৈতিক কারণে বিএনপি’র চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি হচ্ছে না উল্লেখ করে বিএনপির এই জ্যেষ্ঠ নেতা বলেন, খালেদা জিয়া ১ বছর ৯ মাস কারাগারে আছেন। তাকে অন্যায়ভাবে রাজনৈতিক কারণে আটকে রাখা হয়েছে। দেশনেত্রীর জামিনে মুক্তি না হলে আন্দোলনই একমাত্র পথ। রাজপথের মাধ্যমে তার মুক্তি নিশ্চিত করতে হবে।

আন্দোলনের জন্য মানুষ মুখিয়ে আছে উল্লেখ করে মওদুদ বলেন, দেশের মানুষ প্রস্তুত আছে। আমরা কোন ধরনের কর্মসূচি দেই, তার জন্য মানুষ আমাদের দিকে চেয়ে রয়েছে। এই কর্মসূচিতে তারা অংশগ্রহণ করে শুধু খালেদা জিয়ার মুক্তি নয় এদেশের গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনবে।

এ সময় বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুল হক মিলন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ