বুধবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২২

চাকুরিচ্যুত দুদক কর্মকর্তাকে রিট করার পরামর্শ হাইকোর্টের

সোমবার, ফেব্রুয়ারী ২১, ২০২২
চাকুরিচ্যুত দুদক কর্মকর্তাকে রিট করার পরামর্শ হাইকোর্টের

সময়জার্নালপ্রতিবেদক 

সদ্য চাকুরিচ্যুত দুদক কর্মকর্তা শরীফ উদ্দিনকে রিট করার পরামর্শ দিয়েছেন হাইকোর্ট। চাকরি চলে যাওয়ার কারণ খতিয়ে দেখতে ১০ আইনজীবীর চিঠি আমলে নেওয়ার সুযোগ নেই বলেও জানায় হাইকোর্ট।
মঙ্গলবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সকালে বিচারপতি নজরুল ইসলাম তালুকদারের বেঞ্চ এ আদেশ দেন। 

এ সময় তিনি বলেন, শরীফ যদি সত্যিকারের ভুক্তভোগি হয়, তাহলে রিট আকারে আসতে হবে তাকে। তখন আইন অনুযায়ী যা হওয়ার হবে। রিট শোনার পর আদেশ দেওয়ার কথাও বলেন তিনি।

এর আগে রোববার (২০ ফেব্রুয়ারি) দুদকের উপসহকারী পরিচালক মো. শরীফ উদ্দিনকে অপসারণের কারণ খতিয়ে দেখতে হাইকোর্টকে চিঠি দেন ১০ আইনজীবী। দুদকের মামলা বিচারের এখতিয়ার সম্পন্ন বেঞ্চ ও সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেলকে এ চিঠি দেওয়া হয়।

 শরীফ উদ্দিনের বিরুদ্ধে র‍্যাবের অভিযানে উদ্ধার হওয়া প্রায় ৯৪ লাখ টাকার চালান বাংলাদেশ ব্যাংক কিংবা রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা না দিয়ে নিজের কাছে রেখে দেওয়ার পাশাপাশি আদালতের অনুমতি ছাড়াই ব্যাংক হিসাব বন্ধ রাখার মতো গুরুতর ৫টি অভিযোগ উঠে।

এ ছাড়া ঘুষ না পেয়ে শরীফ হয়রানি করেছেন এমন ছয়জন লিখিত অভিযোগও করেছেন দুদকের কাছে। এসব  অভিযোগের সত্যতা মেলায় শরীফকে দুদক থেকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে বলে জানান শীর্ষ কর্মকর্তারা।

২০২০ সালের ১৯ ফেব্রুয়ারি র‌্যাবের অভিযানে কক্সবাজারের ভূমি অফিসের কর্মচারী সার্ভেয়ার ওয়াসিম খানকে আটকের পাশাপাশি তার বাড়ি থেকে জব্দ করা হয় ৯৩ লাখ ৬০ হাজার ১৫০ টাকা। জব্দ টাকাগুলো তদন্তকারী কর্মকর্তা হিসেবে দুদকের উপসহকারী পরিচালক মোহাম্মদ শরীফ উদ্দিনের কাছে হস্তান্তর করা হলেও বাংলাদেশ ব্যাংক কিংবা রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা হয়নি বলে অভিযোগ ওঠে।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে উচ্চ আদালত গত বছরের ১৩ ডিসেম্বর রুল জারি করে এক দিনের মধ্যে এ-সংক্রান্ত প্রতিবেদন দিতে বলেন। পরদিন দেওয়া দুদকের প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, টাকাগুলো তাদের ভল্টে রয়েছে। জব্দ টাকা বাংলাদেশ ব্যাংক কিংবা সরকারি কোষাগারে জমা না হওয়ায় দুদক কর্মকর্তা শরীফ উদ্দিনের বিরুদ্ধে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়।

আদালতের অনুমতি ছাড়াই কক্সবাজারে একটি ব্যাংক হিসাব স্থগিত করেন দুদক কর্মকর্তা শরীফ উদ্দিন। বিষয়টি আদালতের নজরে এলে শরীফের বিরুদ্ধে ক্ষমতার অপব্যবহার এবং অসদাচরণের অভিযোগ ওঠে। এটিও তদন্ত করেছেন দুদকের শীর্ষ কর্মকর্তারা।

এ ছাড়া গত বছরের ১৬ জুন শরীফকে চট্টগ্রাম থেকে পটুয়াখালী বদলি করা হয়। কিন্তু শরীফ কর্মস্থলে যোগ না দিয়ে বদলি আদেশ চ্যালেঞ্জ করে রিট করেন। সেই সঙ্গে চাকরিবিধি লঙ্ঘন করে নির্ধারিত সময়ের এক মাস পর ই-মেইলে যোগদানপত্র পাঠানো এবং আরও এক মাস পর সশরীরে যোগ দেওয়াকে শরীফের দোষ হিসেবেই দেখছে দুদক।

দুদক কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজারের অন্তত ছয়জন ভুক্তভোগী চাহিদা অনুযায়ী ঘুষ না পেয়ে শরীফ উদ্দিন তাদের ভয়ভীতি দেখানোর পাশাপাশি হয়রানি করেছেন বলে লিখিত অভিযোগ করেন।

চাকরিবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে দুদক ১৬ ফেব্রুয়ারি এক প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমে পটুয়াখালী জেলা সমন্বিত কার্যালয়ে কর্মরত উপসহকারী পরিচালক মোহাম্মদ শরীফ উদ্দিনকে চাকরি থেকে অপসারণ করে। তবে চট্টগ্রাম ও কক্সবাজারে দায়িত্ব পালনের সময় শরীফের বেশ কিছু অনুসন্ধান এবং পদক্ষেপ প্রভাবশালীদের বিরুদ্ধে যায়। এ কারণেই তাকে চাকরি থেকে অপসারণ করা হয় বলেও অভিযোগ উঠেছে।

সময় জার্নাল/ইএইচ


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.

যোগাযোগ:
এহসান টাওয়ার, লেন-১৬/১৭, পূর্বাচল রোড, উত্তর বাড্ডা, ঢাকা-১২১২, বাংলাদেশ
কর্পোরেট অফিস: ২২৯/ক, প্রগতি সরণি, কুড়িল, ঢাকা-১২২৯
ইমেইল: somoyjournal@gmail.com
নিউজরুম ই-মেইল : sjnewsdesk@gmail.com

কপিরাইট স্বত্ব ২০১৯-২০২২ সময় জার্নাল