শুক্রবার, ১৮ জুন ২০২১

সিলেটে হেফাজতে মৃত্যু

এসআই আকবরসহ অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের দাবিতে রায়হানের মায়ের অনশন

রোববার, অক্টোবর ২৫, ২০২০
এসআই আকবরসহ অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের দাবিতে রায়হানের মায়ের অনশন

সিলেটে যে পুলিশ ফাঁড়িতে মো. রায়হান আহমদ (৩৪) নির্যাতনে নিহত হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে, সেই ফাঁড়ির সামনে স্বজনদের নিয়ে আমরণ অনশনে বসেছেন তাঁর মা ছালমা বেগম। আজ রোববার বেলা ১১টা থেকে সিলেট নগরীর বন্দরবাজার ফাঁড়ির সামনে এই ঘটনার মূল হোতাসহ অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের দাবিতে ছালমা বেগম কর্মসূচি শুরু করেন। এ সময় ‘রায়হানের মায়ের অনশন’ শীর্ষক ব্যানারও প্রদর্শন করা হয়। রায়হানের মায়ের এই অনশন কর্মসূচির সঙ্গে বিভিন্ন এলাকার মানুষ ছাড়াও সামাজিক সংগঠনের সদস্যরা একাত্ম হয়েছেন। রায়হানের মা জানিয়েছেন, নির্যাতনের মূল হোতা বন্দরবাজার ফাঁড়ির সাময়িক বরখাস্ত হওয়া এসআই আকবর হোসেন ভূঞাসহ সব হত্যাকারী গ্রেপ্তার না হলে তিনি অনশন অব্যাহত রাখবেন। অনশনে অংশ নেওয়া সবার মাথায় কাফনের কাপড়সাদৃশ্য সাদা কাপড় ছিল। অনশনকালে রায়হানের মা ছালমা বেগম অভিযোগ করেন, ১০ অক্টোবর রায়হানকে এই ফাঁড়িতে তুলে নিয়ে নির্মমভাবে নির্যাতন করা হয়। পরদিন তাঁর মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় মামলা করার পর অভিযুক্ত ফাঁড়ির পুলিশদের বরখাস্ত ও প্রত্যাহার করা হলেও সেখান থেকে পালিয়ে যান মূল হোতা এসআই আকবর হোসেন। দুই সপ্তাহ পরও তাঁর কোনো খোঁজ পাওয়া যায়নি।

এলাকাবাসীসহ দেশে ও বিদেশে নানা কর্মসূচি পালনের পরও আকবর ধরা না পড়ায় তিনি এই অনশন করছেন। রায়হানের হত্যাকারীদের গ্রেপ্তার না হওয়া পর্যন্ত তিনি অনশনে থাকবেন। ১১ অক্টোবর বন্দরবাজার পুলিশ ফাঁড়িতে নির্যাতনে রায়হানের মৃত্যুর অভিযোগে কোতোয়ালি থানায় মামলা করার পর ১৪ দিন পেরিয়ে গেছে। কিন্তু এখনো মূল অভিযুক্ত এসআই আকবর হোসেন পলাতক। তবে এ ঘটনায় টিটু চন্দ্র দাস ও হারুন অর রশিদ নামের সাময়িক বরখাস্ত হওয়া দুই কনস্টেবলকে গ্রেপ্তার করে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশের ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)।


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.



স্বত্ব ২০২১ সময় জার্নাল | ডেভেলপার এম রহমান সাইদ