শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২২

ভারত-পাকিস্তানের মহাকাব্যিক দ্বৈরথে শেষ হাসি হাসবে কে?

শনিবার, আগস্ট ২৭, ২০২২
ভারত-পাকিস্তানের মহাকাব্যিক দ্বৈরথে শেষ হাসি হাসবে কে?

স্পোর্টস ডেস্ক:

দক্ষিণ এশিয়ার দুই প্রতিবেশী ভারত-পাকিস্তান। ৭০ বছর ধরে রাজনৈতিক টানাপড়েন চলছে দুই দেশের মধ্যে। নানা ইস্যুতে বেশ কয়েকবার সম্মুখ সমরেও লিপ্ত হয়েছে তারা। ক্রিকেট মাঠে যখন মুখোমুখি হয় এই দুই দেশ, মাঠের বাইরের সেই বৈরিতার রেশ ছড়িয়ে পড়ে সেখানেও।

রাজনৈতিক দ্বন্দ্বের কারণে দীর্ঘ সময় ধরে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ খেলা হয় না, সফর করা হয় না একে অন্যের ডেরায়। তাই তর্কসাপক্ষে বিশ্ব ক্রিকেটের সবচেয়ে আকর্ষণীয় এই দ্বৈরথ দেখার জন্য ক্রিকেটপ্রেমীদের অপেক্ষা করতে হয় বিশ্ব এবং মহাদেশীয় প্রতিযোগিতাগুলোর। গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের নয় মাস পর আবারও মুখোমুখি হচ্ছে ভারত-পাকিস্তান। এশিয়া কাপে আজ রাতে দুই ক্রিকেট পরাশক্তির মহারণ দেখবে বিশ্ব।

বিশ্ব এবং মহাদেশীয় আসরগুলোতে বরাবরই ভারতের সামনে অসহায় পাকিস্তান। তবে গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সব হিসাব-নিকাশ বদলে দেয় বাবর আজমের দল। ১০ উইকেটের বিশাল জয়ে ভারতকে মাটিতে নামান শাহীন আফ্রিদিরা। বিশ্বকাপে হারের সেই ক্ষত এখনো শুকায়নি, সরাসরি না বললেও এশিয়া কাপে পাকিস্তানের ওপর প্রতিশোধ নিতে যে মুখিয়ে আছে ভারত, তা বলাই বাহুল্য।

এশিয়া কাপের আগে বেশিরভাগ মানদণ্ডেই অবশ্য পাকিস্তানের চেয়ে এগিয়ে ভারত। 

ঐতিহাসিকভাবে টি-টোয়েন্টিতে ভারতের চেয়ে যোজন যোজন পিছিয়ে পাকিস্তান। ক্রিকেটের ক্ষুদ্রতম এই ফরম্যাটে দুই দল এখন পর্যন্ত ৯ বার মুখোমুখি হয়েছে, যার মধ্যে মাত্র দু’বার জয়ের দেখা পেয়েছে পাকিস্তান, ছয়বারই ম্যাচ শেষে হাসি ছিল ভারতীয়দের মুখে। অপর ম্যাচটি টাই।

বর্তমান টি-টোয়েন্টি র‍্যাঙ্কিংয়েও ভারতের চেয়ে পিছিয়ে আছে পাকিস্তান। ভারত যেখানে টেবিলের শীর্ষে, পাকিস্তান অবস্থান করছে তৃতীয় স্থানে। এশিয়া কাপেও ইতিহাস কথা বলছে ভারতের পক্ষে। মহাদেশীয় শ্রেষ্ঠত্বের এই আসরে দুই দল মুখোমুখি হয়েছে ১৪ বার, যার মধ্যে ৮ বার ভারত এবং ৫ বার পাকিস্তান শেষ হাসি হেসেছে, অন্য ম্যাচটি পরিত্যক্ত হয়।

এশিয়া কাপেও ঐতিহাসিকভাবে সবচেয়ে সফল দল গত দুই আসরের চ্যাম্পিয়ন ভারত। এখন পর্যন্ত ১৪ আসরের মধ্যে ৭ বারই শিরোপা উঠেছে তাদের হাতে। অন্যদিকে পাকিস্তান মহাদেশীয় শ্রেষ্ঠত্বের স্বাদ পেয়েছে দুইবার। ২০১২ এশিয়া কাপ ফাইনালে বাংলাদেশকে দুই রানের আক্ষেপে পুড়িয়ে শেষবার শিরোপা জিতেছিল পাকিস্তান।

এশিয়া কাপ মিশন শুরুর আগে দুই দলকেই ভুগতে হচ্ছে চোট সমস্যায়। আসরের দল ঘোষণার আগেই চোট নিয়ে মাঠের বাইরে ছিটকে গেছেন ভারতের অন্যতম সেরা পেস বোলিং তারকা জশপ্রীত বুমরাহ এবং হার্শাল প্যাটেল। ওদিকে গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারত বধের অন্যতম নায়ক পেসার শাহীন শাহ আফ্রিদিও হাঁটুর চোট নিয়ে এখন মাঠের বাইরে। তার বদলি হিসেবে যার একাদশে সুযোগ পাওয়ার সম্ভাবনা ছিল সেই মোহাম্মদ ওয়াসিম জুনিয়রের এশিয়া কাপও শুরুর আগেই শেষ হয়েছে পিঠের চোটে। শেষ মুহূর্তে তার জায়গায় পাকিস্তান দলে সুযোগ পেয়েছেন ‘বিতর্কিত’ পেসার হাসান আলি।

এদিকে এশিয়া কাপ দিয়ে দুই সিরিজ পর দলে ফিরছেন ভারতের সাবেক অধিনায়ক বিরাট কোহলি। তিন বছর ধরে বাজে ফর্মের বৃত্তে ঘুরপাক খাওয়া এই ভারতীয় ব্যাটার এশিয়া কাপ দিয়েই স্বরূপে ফিরতে মরিয়া। পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর আজম অবশ্য ক্যারিয়ারের সেরা সময় কাটাচ্ছেন। এশিয়া কাপে আরও এক মাইলফলক হাতছানি দিচ্ছে তাকে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ৭,৮৮০ রান নিয়ে এশিয়া কাপে মাঠে নামবেন বাবর, আর ১২০ রান করলেই ৮ হাজারি ক্লাবে প্রবেশ করবেন তিনি।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রতিশোধ নিতে পারবে ভারত নাকি বৈরি প্রতিবেশীদের ওপর দাপট বিজায় রাখবে পাকিস্তান, তা জানতে আর মাত্র কয়েক ঘণ্টার অপেক্ষা। রোববার বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে এশিয়া কাপে ‘এ’ গ্রুপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হবে ভারত-পাকিস্তান। ম্যাচটি স্টার স্পোর্টস ১ এবং নাগরিক টিভি বাংলাদেশে সরাসরি সম্পরচার করবে।

এমআই


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.

যোগাযোগ:
এহসান টাওয়ার, লেন-১৬/১৭, পূর্বাচল রোড, উত্তর বাড্ডা, ঢাকা-১২১২, বাংলাদেশ
কর্পোরেট অফিস: ২২৯/ক, প্রগতি সরণি, কুড়িল, ঢাকা-১২২৯
ইমেইল: somoyjournal@gmail.com
নিউজরুম ই-মেইল : sjnewsdesk@gmail.com

কপিরাইট স্বত্ব ২০১৯-২০২২ সময় জার্নাল