মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২

আওয়ামী লীগকে ভয় দেখিয়ে লাভ নেই , আওয়ামী লীগের সঙ্গে ‘খেলে’ পারবে না বিএনপি:কাদের

শনিবার, অক্টোবর ২২, ২০২২
আওয়ামী লীগকে ভয় দেখিয়ে লাভ নেই , আওয়ামী লীগের সঙ্গে ‘খেলে’ পারবে না বিএনপি:কাদের

সময় জার্নাল ডেস্ক:


জনস্রোতেই বিএনপির জবাব দেবে আ.লীগ

আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনেক টার্গেট করে সারা দেশে দলীয় শক্তি প্রদর্শন করছে প্রধান বিরোধী দল বিএনপি। বিভাগীয় সমাবেশের মাধ্যমে নেতাকর্মীদের মাঠে রাখা ও জনগণকে সরকারবিরোধী অবস্থানে আনার চেষ্টা করছে দলটি। বিএনপির এসব সভা সমাবেশ ও গণসমাবেশের সংবাদ মিডিয়াও ফলাও করে প্রচার করছে।



বিএনপির সভা-সমাবেশকে রাজনৈতিকভাবেই মোকাবিলার করার কৌশল নিয়েছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। পাল্টা শক্তি প্রর্দশন করার উদ্যোগ নিয়েছে। এর অংশ হিসেবে আজ ঢাকার অন্যতম প্রবেশদ্বার নারায়গঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে ব্যাপক শোডাউন করবে ক্ষমতাসীনরা। কেন্দ্রের নির্দেশনা মোতাবেক সেই ব্যবস্থাই নিয়েছে নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা।


ধারণা  করা হচ্ছে, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের আজকের সম্মেলনে লক্ষাধিক নেতাকর্মী অংশ নিতে পারেন। তা ছাড়া দীর্ঘ ২৫ বছর পর সম্মেলন হওয়ায়  সভাপতি সাধারণ সম্পাদকসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পদপ্রত্যাশীরা নিজ নিজ উদ্যোগে ব্যাপক শোডাউন করার প্রস্তুতি নিয়েছে। ফলে আজকের সম্মেলন জনসমুদ্রে রূপ নিতে পারে বলে মনে করছেন  আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা।


নারায়ণগঞ্জ জেলা আ.লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হাই বলেন, এবারের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনের প্রস্তুতি আগের সম্মেলনগুলোর চেয়ে অনেক ভালো।  লাখো নেতাকর্মী সম্মেলনে অংশ নেবেন। সাংগঠনিকভাবেও আমরা আগের চেয়ে ভালো অবস্থায় আছি। আজ জেলা আ.লীগের সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন বাংলাদেশ আ.লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক এমপি। প্রধান অতিথি থাকবেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং দলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। প্রধান বক্তা কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম এমপি। বিশেষ অতিথি যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও শিক্ষামন্ত্রী ডা. দিপু মনিসহ কেন্দ্রীয় নেতরা।


এদিকে আগামী সপ্তাহে অনুষ্ঠিতব্য ঢাকা জেলা আ.লীগের সম্মেলনেও ব্যাপক শোডাউন করবে আ.লীগ। সেই মোতাবেক প্রস্ততি নিচ্ছে  ঢাকা জেলার বিভিন্ন থানা ও ইউনিয়ন আ.লীগের নেতাকর্মী।  এ জন্য নিয়মিত চলছে প্রস্তুতিসভা।  


আগামী ২৯ অক্টোবর রাজধানীর বঙ্গবন্ধু কনভেনশন সেন্টারের পাশে যেখানে বাণিজ্য মেলা প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিতব্য ওওই সম্মেলনেও জনস্রোত নামাতে চায় আ.লীগের হাইকমান্ড। 


জানা গেছে, মূলত নানা ধরনের বাধাবিপত্তি পেরিয়ে শত প্রতিকূলতার মধ্যেই বিএনপির চলমান কর্মসূচিতে ব্যাপক সংখ্যাক নেতাকর্মী ও সাধারণ মানুষের উপস্থিতির বিষয়টি মাথায় রেখেই ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ পাল্লা শক্তি প্রদর্শনের কৌশল নিয়েছে।  


ইতোমধ্যে আ.লীগ নেতা ঘোষণা দিয়েছে বিজয়ের মাস ডিসেম্বরে রাজপথ থাকবে পুরোপুরি আ.লীগের দখলে। তার আগে আজ থেকেই আ.লীগের সব কর্মসূচিতে ব্যাপক নেতাকর্মী ও সাধারণ মানুষের উপস্থিতির মধ্য দিয়ে নিজেদের শক্তিরও জানান দিতে চায় ক্ষমতাসীনরা।


আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে উদ্দেশ্য করে বলেছেন, আওয়ামী লীগকে ভয় দেখিয়ে লাভ নেই , আওয়ামী লীগের সঙ্গে ‘খেলে’ পারবে না বিএনপি। বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশে যত মানুষ হয়, আ.লীগের জেলা সম্মেলনেই তত মানুষ হয় বলেও দাবি করেন কাদের।


২৩ অক্টোবর নারায়ণগঞ্জ ও ২৯ অক্টোবর ঢাকা জেলার সম্মেলনে দৃষ্টি রাখতে বিএনপি নেতাদের পরামর্শও দিয়েছেন তিনি। বিএনপির সমাবেশে জনসমাগম দেখে আ.লীগের মাথা খারাপ হয়ে গেছে বলে বিএনপি নেতাদের বক্তব্যের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, আমাদের লোকের ভয় দেখায়? বড় বড় কথা বলেন।


দেখবেন লোক, ২৩ তারিখে নারায়ণগঞ্জে আসেন, সম্মেলন, জনসভা নয়। ২৯ তারিখে ঢাকা জেলার। আসুন বঙ্গবন্ধু কনভেনশন সেন্টারের পাশে যেখানে বাণিজ্য মেলা হতো, সেখানে ঢাকা জেলার সম্মেলন। 


আজ দীর্ঘ ২৫ বছর পর নারায়ণগঞ্জ জেলা আ.লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। নগরীর ইসদাইরে ওসমানী আলী স্টেডিয়ামে বিশাল আকারের মঞ্চ ও প্যান্ডেল করা হয়েছে। ব্যানার ফেস্টুনে ছেয়ে গেছে পুরো এলাকা।


নেতাকর্মীদের মধ্যে উচ্ছ্বাস আনন্দ বিরাজ করছে সম্মেলন ঘিরে। জানা গেছে, নারায়ণগঞ্জ জেলার সর্বশেষ কাউন্সিল হয় ১৯৯৭ সালের ২০ ডিসেম্বর। অধ্যাপিকা নাজমা রহমান সভাপতি ও এমপি শামীম ওসমান সাধারণ সম্পাদক হয়েছিলেন।


এরপর ২০০২ সালের ২৭ মার্চ নারায়ণগঞ্জ-৫ (সদর-বন্দর) আসনের সাবেক সংসদ সদস্য এস এম আকরামকে আহ্বায়ক করে কেন্দ্র থেকে ৬১ সদস্যের একটি আহ্বায়ক কমিটি করে দেয়া হয় পরে ২০১১ সালে নাসিক নির্বাচনের পর আকস্মিকভাবে আহ্বায়কের পদ থেকে এস এম আকরাম পদত্যাগ করে যুক্ত হন নাগরিক ঐক্যের সাথে।


পরে ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক করা হয় যুগ্ম আহ্বায়ক মফিজুল ইসলামকে। কিন্তু ২০১৪ সালের ১১ ফেব্রুয়ারি মফিজুল ইসলাম মারা যান। ২০১৬ সালের ৯ অক্টোবর নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের তাৎকালীন প্রশাসক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হাইকে সভাপতি এবং সিটি কর্পোরেশনের বর্তমান মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীকে সিনিয়র সহ-সভাপতি ও অ্যাডভোকেট আবু হাসনাত মো. শহীদ বাদলকে সাধারণ সম্পাদক করে তিন সদস্যবিশিষ্ট জেলা আ.লীগের আংশিক কমিটি ঘোষণা করে কেন্দ্র।


এর ১৩ মাস পর ২০১৭ সালের ২৫ নভেম্বর ছয়টি পদ শূন্য রেখে নারায়ণগঞ্জ জেলা আ.লীগের ৭৪ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন দেয় কেন্দ্র। কিন্তু পাঁচ বছরেও পূরণ হয়নি শূন্যপদগুলো। তাই আজকের সম্মেলনের মাধ্যমে নতুন নেতৃত্ব সৃষ্টি হবে এবং দল সাংগঠনিকভাবে শক্তিশালী হবে এমন প্রত্যাশা সংগঠনটির নেতাকর্মীদের।


এদিকে সম্মেলন ঘিরে পদপ্রত্যাশী নেতারা কেন্দ্রীয় নেতাদের আস্থা অর্জনের প্রচেষ্টা চালিয়েছেন সাধ্যমতো। জেলা আ.লীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে সভাপতি পদে আলোচনায় রয়েছেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান, নারায়ণগঞ্জ জেলা আ.লীগের বর্তমান সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হাই। সাধারণ সম্পাদক পদে আলোচনা রয়েছেন নারায়ণগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম বাবু, জেলা আ.লীগের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবু হাসনাত মো. শহীদ বাদল ও আ,লীগের জাতীয় পরিষদের সদস্য অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান দীপু।  একইভাবে দীর্ঘদিন পর ২৯  অক্টোবর মাসে হতে যাচ্ছে ঢাকা জেলা আ.লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন। সম্মেলন ঘিরে দলীয় নেতাকর্মীদের মধ্যে চলছে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনা।


এসএম 


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.

যোগাযোগ:
এহসান টাওয়ার, লেন-১৬/১৭, পূর্বাচল রোড, উত্তর বাড্ডা, ঢাকা-১২১২, বাংলাদেশ
কর্পোরেট অফিস: ২২৯/ক, প্রগতি সরণি, কুড়িল, ঢাকা-১২২৯
ইমেইল: somoyjournal@gmail.com
নিউজরুম ই-মেইল : sjnewsdesk@gmail.com

কপিরাইট স্বত্ব ২০১৯-২০২২ সময় জার্নাল