বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২

গীতা স্পর্শ করে শপথ নিচ্ছেন কি, ঋষি সুনক

সোমবার, অক্টোবর ২৪, ২০২২
গীতা স্পর্শ করে শপথ নিচ্ছেন কি, ঋষি সুনক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

ব্রিটেনের কুর্সিতে বসতে চলেছেন ঋষি সুনক। আগামী ২৮ অক্টোবর প্রধানমন্ত্রী পদে শপথ নিতে চলেছেন তিনি। সোমবার দীপাবলির রাতে সূদূর ব্রিটেন থেকে ওই খবর আসার পর থেকেই ভাবী প্রধানমন্ত্রীর ভারত-যোগ নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে ভারতের রাজনৈতিক মহলে। 

প্রক্যাশে নিজের ধর্মীয় বিশ্বাস নিয়ে কখনো সরব না হলেও নিজেকে বরাবরই ‘গর্বিত হিন্দু’ হিসাবেই তুলে ধরে এসেছেন ঋষি। যা তার রাজনৈতিক উচ্চাকাঙ্ক্ষায় কখনো কখনো ‘কাঁটা’ হয়ে দাঁড়ালেও ‘হিন্দু পরিচয়’ দূরে রেখেই এ বার ব্রিটেনের গদিতে বসতে চলেছেন তিনি। তবে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে, এমপি হিসেবে শপথ নেয়ার মতো এবারো কি ভগবত গীতা ছুঁয়েই শপথ নেবেন ভাবী প্রধানমন্ত্রী।

ব্রিটেনের ইতিহাসে সর্বকনিষ্ঠ প্রধানমন্ত্রী হতে চলেছেন ৪২ বছরের ঋষি। ৮০ সালে ব্রিটেনের সাউদাম্পটনে জন্ম হলেও ঋষির পরিবারের ভারত-সংশ্লিষ্টতা বহু পুরনো। ঋষিদের আদি বাড়ি ভারতের পাঞ্জাবে। ব্রিটিশ শাসনকালে কাজের সূত্রে ঋষির দাদা নাইরোবি চলে যান। তার পর ছয়ের দশকে আফ্রিকা ছেড়ে ব্রিটেনে চলে আসে সুনক পরিবার। ঋষির বাবা চিকিৎসক এবং মা ছিলেন ফার্মাসিস্ট।

এখানেই শেষ নয়। ঋষি ইনফোসিস কর্তা নারায়ণ মূর্তির মেয়ের জামাইও। নারায়ণের মেয়ে অক্ষতাকে ২০০৯ সালে বিয়ে করেন তিনি। স্ত্রী এবং দুই সন্তানকে নিয়ে একাধিকবার বেঙ্গালুরুতে পরিবারের সাথে সময় কাটাতেও দেখা গেছে ঋষিকে। বিভিন্ন সাক্ষাৎকারে তিনি পারিবারিক মূল্যবোধ এবং ঐতিহ্য নিয়ে কথা বলে এসেছেন। রীতি মেনে গত দীপাবলিতে নিজের বাড়িতে প্রদীপ জ্বালিয়েছিলেন ঋষি। বরিস জনসনের আমলে চ্যান্সেলর পদে থাকার সময় ডাউনিং স্ট্রিটের বাড়িতে প্রদীপ জ্বালাতে দেখা গিয়েছিল তাকে।

শুধু তা-ই নয়, ২০১৭ সালের সাধারণ নির্বাচনে জিতে এমপি হওয়ার পর শপথ গ্রহণের সময় গীতায় হাত রাখতে দেখা গিয়েছিল ঋষিকে। তিনিই প্রথম এমপি, ব্রিটেনের পার্লামেন্টে দাঁড়িয়ে ওই কাজ করেছেন। তা নিয়ে বিস্তর আলোচনাও হয়েছিল ব্রিটেনের রাজনৈতিক মহলে। সমালোচিত হওয়ার পরও নিজের অবস্থানে অনড় থেকেছেন সুনক।

কনজারভেটিভ দলের একাংশের মতে, প্রধানমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেয়ার সময়েও গীতা ছুঁতে দেখা যেতে পারে ঋষিকে। কারণ, তিনিই এক সময়ে বলেছেন, তিনি যখনই মানসিক চাপে থাকেন, তখন গীতা তাকে উদ্ধার করে। আরো বেশি দায়িত্ববান হওয়ার কথা বলে গীতা।

একটি সাক্ষাৎকারেও তাকে বলতে শোনা গেছে, ‘আমার বিশ্বাস আমায় শক্তি দেয়। আমার লক্ষ্য স্থির করে দেয়। মনে হয়, আমারই একটি অংশ তা।’

যদিও অন্য একটি অংশের অভিমত, এমপি হিসাবে গীতা ছুঁয়ে শপথ নিলেও প্রধানমন্ত্রী হিসেবে এত বড় ঝুঁকি নেবেন না ঋষি। আর শুধু তো কুর্সিতে বসাই নয়, তার কাজের উপরই নির্ভর করবে আগামী সাধারণ নির্বাচনে কনজারভেটির পার্টির ভাগ্য। তাই, দলের স্বার্থের কথাও বেশি করে মাথায় রাখতে হবে তাকে।

সময় জার্নাল/এলআর


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.

যোগাযোগ:
এহসান টাওয়ার, লেন-১৬/১৭, পূর্বাচল রোড, উত্তর বাড্ডা, ঢাকা-১২১২, বাংলাদেশ
কর্পোরেট অফিস: ২২৯/ক, প্রগতি সরণি, কুড়িল, ঢাকা-১২২৯
ইমেইল: somoyjournal@gmail.com
নিউজরুম ই-মেইল : sjnewsdesk@gmail.com

কপিরাইট স্বত্ব ২০১৯-২০২২ সময় জার্নাল