বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪

বাড়ছে ঠান্ডাজনিত রোগের প্রকোপ, হাসপাতালে রোগীর চাপ

সোমবার, জানুয়ারী ২৯, ২০২৪
বাড়ছে ঠান্ডাজনিত রোগের প্রকোপ, হাসপাতালে রোগীর চাপ

নিজস্ব প্রতিনিধি:

শীতের শুষ্কতায় বাতাসে বাড়ছে দূষণ, ধূলিকণা। কমছে আর্দ্রতা। এরই মধ্যে দেখা দিয়েছে জ্বর, ঠান্ডা, শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা। হাসপাতালে ছোটা রোগীদের মধ্যে বয়স্ক রোগীই বেশি। শিশুরা ঠান্ডাজনিত রোগের পাশাপাশি হ্যান্ড, ফুট অ্যান্ড মাউথ রোগ নিয়েও ছুটছে হাসপাতালে।

রাজধানীর শ্যামলীর বাংলাদেশ শিশু হাসপাতাল ও ইনস্টিটিউট এবং ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ঘুরে দেখা যায়, ঠান্ডাজনিত জ্বর, সর্দি, শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যার রোগীই বেশি।

বহির্বিভাগে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে লাইনে দাঁড়িয়ে আছেন কমপক্ষে ৫০ জন। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, স্বাভাবিক সময়ের তুলনায় প্রায় ৩০-৪০ শতাংশ বাড়তি রোগী আসছে প্রতিদিন।

শ্বাসজনিত সমস্যা নিয়ে আসা একমাস বয়সী শিশু সাইদুরের মা বলেন, রাত থেকে কান্নাকাটি করছে সাইদুর। নাক বন্ধ হয়ে ছিল। নিশ্বাস নিতে পারছিল না। সকালে গলায় আওয়াজ হচ্ছিল আর সমস্যা আরও বেড়ে যায়। এরপর দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে আসছি।

হাসপাতালের ইমার্জেন্সি অবজারভেশন অ্যান্ড রেফারেল ওয়ার্ডের সবকয়টি বিছানা শিশু রোগীতে পরিপূর্ণ থাকতে দেখা যায়। সেখানকার দায়িত্বরত চিকিৎসক-নার্সরা জানান, ভর্তি বেশির ভাগ শিশুই ঠান্ডাজনিত রোগ নিয়ে এসেছে।

ঢাকা মেডিকেলের আউটডোরে চিকিৎসা দিচ্ছিলেন ডা. সাহেদ আব্দুল্লাহ। তিনি বলেন, শীতের শুরুতে প্রতিবারই ঠান্ডাজনিত সমস্যার রোগী বাড়ে। সামনে শীত বাড়লে রোগীর সংখ্যা আরও বেড়ে যাবে। এই মুহূর্তে বেশিরভাগ বয়স্ক রোগী পাচ্ছি। যারা দীর্ঘদিন নানা অসুখে ভুগছেন। অনেকের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম।

মৌসুমি রোগবালাই বেশি হচ্ছে। আমরা প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বাড়ি পাঠিয়ে দিচ্ছি। তবে যাদের গুরুতর নিউমোনিয়া হচ্ছে, যারা বয়স্ক, যাদের অক্সিজেনের মাত্রা কমে যায়, শ্বাসকষ্ট বেশি থাকে তাদের ভর্তি করতে হচ্ছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) রেসপিরেটরি মেডিসিন বিভাগের সাবেক চেয়ারম্যান অধ্যাপক ডা. এ কে এম মোশাররফ হোসেন বলেন, ‘শীতকাল এলে নানা ধরনের ঠান্ডাজনিত রোগ হয়। এর মধ্যে বয়স্ক, শিশু ও দীর্ঘদিন রোগে ভোগা মানুষ বেশি অসুখে ভোগে।

এছাড়া যাদের শ্বাসজনিত রোগ অ্যাজমা বা হাঁপানি রোগ আছে তাদের শীতকালে সমস্যা বাড়ে।’
এসময় শ্বাসজনিত রোগ-বালাই থেকে বাঁচতে বেশি পানি পান করার পরামর্শ দেন তিনি। এতে শরীরের তাপমাত্রা ঠিক থাকবে। শরীরের রোগ-জীবাণু বের হয়ে যাবে।

এছাড়া তাজা ফলমূল খেতে পারেন সুস্থ থাকতে। প্রতিদিন অন্তত আধাঘণ্টা কায়িক শ্রম করতে হবে। যারা শ্বাসতন্ত্রের রোগ, হার্টের রোগ অথবা কিডনি রোগে ভুগছেন তাদের ইনফ্লুয়েঞ্জা ও নিউমোনিয়া প্রতিষেধক টিকা নিতে হবে। তাহলে শীতে তারা সুস্থ থাকবেন- জানান ডা. মোশাররফ।

সময় জার্নাল/এলআর


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.

উপদেষ্টা সম্পাদক: প্রফেসর সৈয়দ আহসানুল আলম পারভেজ

যোগাযোগ:
এহসান টাওয়ার, লেন-১৬/১৭, পূর্বাচল রোড, উত্তর বাড্ডা, ঢাকা-১২১২, বাংলাদেশ
কর্পোরেট অফিস: ২২৯/ক, প্রগতি সরণি, কুড়িল, ঢাকা-১২২৯
ইমেইল: somoyjournal@gmail.com
নিউজরুম ই-মেইল : sjnewsdesk@gmail.com

কপিরাইট স্বত্ব ২০১৯-২০২৪ সময় জার্নাল