বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪

ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সাহসী পদক্ষেপ

এনডিএমএ গঠন: আন্তর্জাতিক মানের উদ্ধারকারী টিম গঠনের পথ সুগম হলো

বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ২৫, ২০২৪
এনডিএমএ গঠন: আন্তর্জাতিক মানের উদ্ধারকারী টিম গঠনের পথ সুগম হলো

নিজস্ব প্রতিবেদক:

বাংলাদেশ একটি দুর্যোগপ্রবণ দেশ। প্রাকৃতিক দুর্যোগের মধ্যে বন্যা এবং ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় সরকার যথেষ্ঠ সক্ষমতার পরিচয় দিয়েছে। কিন্তু ভূমিকম্পের কোন পূর্বাভাস না থাকায় ভূমিকম্পের ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে বাংলাদেশ। এক্ষেত্রে মাঝারি আকারের ভূমিকম্প আঘাত হানলেও শুধুমাত্র ঢাকা শহরেই নয় লক্ষ ঘরবাড়ি ধ্বংস্তূপে পরিণত হবে। ভৌগলিক কারণেই বাংলাদেশ ভূমিকম্পপ্রবণ অঞ্চলে অবস্থিত। ভূমিকম্প সহ বড় ধরনের দুর্যোগ পরবর্তী উদ্ধার কার্যক্রম পরিচালনার জন্য দক্ষ, প্রশিক্ষিত ও আন্তর্জাতিক মানের উদ্ধারকর্মী তৈরির জন্য দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় কাজ করে যাচ্ছে। জাতিসংঘের অনুমোদিত ইন্টারন্যাশনাল সার্চ এন্ড রেসকিউ কোঅর্ডিনেশন গ্রুপ এর সদস্যপদ গ্রহণ এবং বাংলাদেশে ইমার্জেন্সি সার্চ এন্ড রেসকিউ টিম গঠন ও স্বীকৃতির জন্য সংশ্লিষ্ট গাইডলাইন অনুসারে ন্যাশনাল ডিসাস্টার ম্যানেজমেন্ট অথরিটি (এনডিএমএ) গঠনের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে বহুদিন ধরে। এশিয়ার ৯টি দেশ সদস্য হলেও বাংলাদেশ এগুতে পারেনি দীর্ঘ ১২ বছরে। এ প্রক্রিয়া শেষ হয়নি। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের অধীনে বিশ্বব্যাংকের সহায়তায় ডিপার্টমেন্ট অফ ডিসাস্টার ম্যানেজমেন্ট কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন আরবান রেজিলেন্স প্রোগ্রাম (ডিডিএম পার্ট) এর ট্রেনিং, এক্সারসাজেস এন্ড ড্রিলস কম্পোনেন্ট এক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে। ইউএনডিপি এর কারিগরি সহযোগিতায় আইএনএসআরএজি অ্যাক্রিডিটিশন এর লক্ষ্যে মন্ত্রণালয় ক্রাশ প্রোগ্রাম গ্রহণ করে। 

বিভিন্ন মন্ত্রণালয়, বিভাগ ও স্টেকহোল্ডারদের সাথে আলোচনা ও মতবিনিময় করে মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে যে আইএনএসআরএজি গাইডলাইন অনুসারে এবং মন্ত্রণালয়ের অ্যালোকেশন অফ বিজনেস অনুসারে মন্ত্রণালয় এনডিএমএ হিসেবে কাজ করতে পারে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের নতুন প্রতিমন্ত্রী মোঃ মহিববুর রহমান এমপি দায়িত্ব গ্রহণের পর তিনি বিষয়টির উপর গুরুত্ব আরোপ করেন। 

এ উপলক্ষে ২৫ এপ্রিল ২০২৪ তারিখ মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে হোটেল ইন্টার কন্টিনেন্টালে আয়োজিত আরবান রেসিলিয়েন্স প্রজেক্ট (ইউআরপি) প্রকল্পের ডিডিএম পার্ট এর "শেয়ারিং ওয়ার্কশপ ও আছিএভেমেন্টস এন্ড লেয়ার্নিংস অফ ট্রেনিং, এক্সারসাজেস এন্ড ড্রিলস (টিইডি) প্রোগ্রাম এন্ড এস্টাব্লিশমেন্ট অফ ন্যাশনাল ডিসাস্টার ম্যানেজমেন্ট অথরিটি (এনডিএমএ)" কর্মশালার আয়োজন করা হয়। 

ডিজি ডিডিএম এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রণালয়ের নতুন প্রতিমন্ত্রী মোঃ মহিববুর রহমান এমপি, বিশেষ অতিথি মন্ত্রণালয়ের সচিব কামরুল হাসান এনডিসি ও ইউএনডিপি বাংলাদেশের রেসিডেন্ট রিপ্রেজেন্টেটিভ স্টেফান লিলার। অনুষ্ঠানে মন্ত্রণালয়, ডিডিএম, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ, ইউএনআরসি, ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স, বাংলাদেশ পুলিশ, সিপিপি, ইউএসএইড, জাইকা সহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থার প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, বুয়েট -এবং ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের বিশেষজ্ঞগণ উপস্থিত ছিলেন। 

প্রকল্প পরিচালক, আরবান রেজিলিয়েন্স প্রকল্প (ডিডিএম পার্ট) কর্মশালায় পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশন দেন। কর্মশালায় উপস্থিত প্রতিনিধিগণ বলেন, এনডিএমএ হওয়া ভূমিকম্প পরবর্তী উদ্ধার কার্যক্রম পরিচালনার একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ। কিন্তু আইএনএসআরএজি অ্যাক্রিডিটিশন এর জন্য টিম গঠনে মন্ত্রণালয়ের করণীয় অনেক কাজ রয়েছে। এজন্য কর্মসূচি চলমান রাখা জরুরী। 

বিশেষ অতিথি ইউএনডিপি বাংলাদেশের রেসিডেন্ট রিপ্রেজেন্টেটিভ স্টেফান লিলার ভূমিকম্প পরবর্তী উদ্ধার কার্যক্রম পরিচালনা, আইএনএসআরএজি অ্যাক্রিডিটিশন এর জন্য মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগের প্রশংসা করে বলেন, এক্ষেত্রে ইউএনডিপি বাংলাদেশ সব সময় সরকারের পাশে রয়েছে। বিশেষ অতিথি মন্ত্রণালয়ের সচিব আইএনএসআরএজি অ্যাক্রিডিটিশন টিম গঠনে মন্ত্রণালয়ের কমিটমেন্ট উল্লেখ করে বলেন এক্ষেত্রে সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন। মন্ত্রণালয় নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। কারিগরি সহযোগিতার জন্য ইউএনডিপিকে ধন্যবাদ জানান। তিনি ইউআরপি ডিডিএম পার্টের ২য় পর্যায়ের ডিপিপি প্রস্তুতির কাজ চলছে বলে জানান। এ বিষয়ে উন্নয়ন সহযোগিদের সহায়তা কামনা করেন। 

কর্মশালার প্রধান অতিথি দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মোঃ মহিববুর রহমান এমপি এনডিএমসি গঠনের ঘোষণা করে বলেন, আজ একটি শুভক্ষণ। দীর্ঘদিনের প্রতীক্ষার অবসান হলো। ভূমিকম্প প্রবণ বাংলাদেশে আইএনএসআরএজি অ্যাক্রিডিটিশন অত্যন্ত জরুরী। এ কার্যক্রমে সকলের অংশগ্রহণের জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে তাঁর মন্ত্রণালয় ভূমিকম্প মোকাবেলায় কাজ করে যাচ্ছে।

তিনি এনডিএমসি গঠন পরবর্তী কার্যক্রম গ্রহণের জন্য মন্ত্রণালয়ের সচিবকে অনুরোধ করেন। উক্ত প্রকল্পের দ্বিতীয় পর্যায়ের ডিপিপি প্রণয়নের উদ্যোগের জন্য এবং এনডিএমসি গঠনকে ত্বরান্বিত করার জন্য সচিবকে এবং তার টিমকে ধন্যবাদ জানান। প্রকল্পের সাথে জড়িত ডিজি ডিডিএম, ইউএনডিপি ও বিশ্বব্যাংকেও ধন্যবাদ জানান। ডিজি ডিডিএম প্রকল্পের কাজ সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার জন্য সকল সহযোগী সংস্থাকে ধন্যবাদ এবং কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।

এমআই 


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.

উপদেষ্টা সম্পাদক: প্রফেসর সৈয়দ আহসানুল আলম পারভেজ

যোগাযোগ:
এহসান টাওয়ার, লেন-১৬/১৭, পূর্বাচল রোড, উত্তর বাড্ডা, ঢাকা-১২১২, বাংলাদেশ
কর্পোরেট অফিস: ২২৯/ক, প্রগতি সরণি, কুড়িল, ঢাকা-১২২৯
ইমেইল: somoyjournal@gmail.com
নিউজরুম ই-মেইল : sjnewsdesk@gmail.com

কপিরাইট স্বত্ব ২০১৯-২০২৪ সময় জার্নাল