শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১

ভারতের লজ্জার হার, সিরিজ জয় শ্রীলংকার

শুক্রবার, জুলাই ৩০, ২০২১
ভারতের লজ্জার হার, সিরিজ জয় শ্রীলংকার

স্পোর্টস ডেস্ক : ভারতের তৃতীয়-চতুর্থ দলও বিশ্বকাপ জেতার ক্ষমতা রাখে, কয়েকদিন আগে এমনটাই বলেছিলেন দলটির অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়া।

শিখর ধাওয়ানের নেতৃত্বে ভারতের ‘বি’ দল শ্রীলংকায় ম্যাচ জয়ের পর এমন দাম্ভিক বক্তব্য দিয়েছিলেন পান্ডিয়া।

‘ভারতের এত প্রতিভা যে এক দলে কুলায় না’— এমন বক্তব্য দিয়েছিলেন ভারতের সাবেক ওপেনা বীরেন্দ্র শেবাগ।

আর সেই ভারত আজ নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে একশো তো দূরের কথা ৯০ রানও করতে পারল না। শ্রীলংকার বোলাদের তাণ্ডবে নির্ধারিত ২০ ওভারে মাত্র ৮১ রানেই থেমে গেছে ভারতের ইনিংস।

সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টিতে কলম্বোয় স্বাগতিকদের মুখোমুখি হয় ভারত।

শেষ ম্যাচে ৩৩ বল বাকি থাকতে ৭ উইকেটে জয় পেয়েছে স্বাগতিক শ্রীলংকা। ফলে ৩-১ ব্যবধানে টি-টোয়েন্টি সিরিজ নিজেদের করে নিয়েছে স্বাগতিকরা।

বৃহস্পতিবার কলম্বোয় প্রেমাদাসায় আগে ব্যাট করতে নেমে ৬৩ রানেই ৮ উইকেট হারায় ভারত। আশঙ্কা করা হচ্ছিল নিজেদের সর্বনিম্ন ৭৪ রানের স্কোরের রেকর্ডটা এবার ভেঙে ফেলে কি না।

তা হতে দেননি কুলদীপ যাদব। তার ২৮ বলে ২৩ রানের অপরাজিত ইনিংসে সেই লজ্জার রেকর্ড এড়িয়ে ৮১ রানে থামে টিম ইন্ডিয়া। তবে টি-টোয়েন্টিতে এটি এখন ভারতের তৃতীয় সর্বনিম্ন স্কোর।

আজ ভারতের হয়ে দুই অঙ্কে পৌঁছুতে পেরেছেন মাত্র তিনজন। ওপেনার ঋতুরাজ, ভুবনেশ্বর কুমার ও কুলদীপ যাদব। দলের সর্বোচ্চ জুটিট হয়েছে ষষ্ঠ উইকেটে ১৯ রানের।

ভারতের ব্যাটসম্যানদের এমন ধ্বংসস্তুপে পরিণত করার জন্য দায়ী ঙ্কান লেগ স্পিনার ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা। ৪ ওভারে ৪ উইকেট নিয়েছেন মাত্র ৯ রান দিয়ে। এমন রেকর্ড ভারতের বিপক্ষে এর আগে কখনোই কোনো লঙ্কান বোলারের নেই।

২০ রানে ২টি উইকেট নিয়েছেন অধিনায়ক দাসুন শানাকা। একটি করে নিয়েছেন দুষ্মন্ত চামিরা ও রমেশ মেন্ডিস। এ ছাড়া ৪ ওভারে মাত্র ১১ রান দিয়েছেন আকিলা দনাঞ্জয়া।

ব্যাটিংয়ে এসে ৮২ রানের মামুলী টার্গেট ১৪.৩ ওভারেই পূরণ করে ফেলেছে শ্রীলংকা। তবে তিন উইকেট খুইয়েছে লঙ্কানরা।

 উদ্বোধনী জুটি থেকে আসে ২৩ রান। ৬ষ্ঠ ওভারে অভিষেক ফার্নান্দোকে ১২ রানে আউট করেন রাহুল চাহার।

নিজের পরের ওভারের শেষ বলে ওপেনার মিনোদ ভানুকাকে এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে ফেলেন।২৭ বলে ১৮ রান করে সাজঘরে ফেরেন ভানুকা। দলীয় ৫৬ রানে চাহারের তৃতীয় শিকারে পরিণত হন সামারাউকরামা। ১৩ বলে ৬ রান করে চাহারের ঘূর্ণিতে বোল্ড হন তিনি।

ব্যস গোটা ম্যাচে এটাই ছিল ভারতীয় দলের সাফল্য।  ৪ ওভারে ১৫ রান দিয়ে রাহুল চাহারের ৩ উইকেট।

এরপর চতুর্থ উইকেটে ধনাঞ্জয়া ডি সিলভা ও বানিন্দু হাসারাঙ্গা শ্রীলংকাকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন।  ৭ উইকেট আর ৩৩ বল হাতে রেখেই লক্ষ্যটা পেরিয়ে গেছে লঙ্কানরা।  ধনাঞ্জয়া ২০ বলে ২৩ রানে অপরাজিত ছিলেন। হাসারাঙ্গা ৯ বলে ১৪ রানে।

সময় জার্নাল/আরইউ


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.



স্বত্ব ২০২১ সময় জার্নাল | ডেভেলপার এম রহমান সাইদ