মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২

বিশ্বনবীকে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে বিক্ষোভ

বৃহস্পতিবার, জুন ৯, ২০২২
বিশ্বনবীকে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে বিক্ষোভ

ববি প্রতিনিধি, মোঃ তারিকুল ইসলাম আরিফ :

ভারতের বিজেপি নেতা নুপুর শর্মা ও  নবীন কুমার জিন্দাল  কতৃক  রাসুল সঃ ও তার প্রিয় সহ-ধর্মিনি মা আয়শা সিদ্দিকা( রাঃ) কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারন শিক্ষার্থীরা প্রতিবাদ জানিয়ে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করেছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ভবনের সামনের পটুয়াখালী-ঢাকা মহাসড়কে মানববন্ধন করেন। 

বৃহস্পতিবার (৯ জুন) সকাল সাড়ে ১১ টায় বিশ্বিবদ্যালয় এর মেইন গেটের সামনে ধর্মপ্রাণ মুসলিম শিক্ষার্থীদের উদ্যোগে  মুসলমান সম্প্রদায়ের সর্বশ্রেষ্ঠ নবি হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) ও তার প্রিয় সহধর্মিনি মা আয়শা সিদ্দিকা ( রাঃ) কে উদ্দেশ্য করে ভারতের বিজেপি নেতাদের দেওয়া বক্তব্যের বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানায় শিক্ষার্থীরা।বিক্ষোভ মিছিলটি বরিশাল পটুয়াখালী মহাসড়ক প্রদক্ষিণ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রাউন্ডফ্লোরে এসে শেষ করেন শিক্ষার্থীরা। 


মূলত, মহানবী (সা.) ও তার সবচেয়ে ছোট স্ত্রীকে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করেন ভারতের বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মা। গত সপ্তাহে টেলিভিশন বিতর্কে তিনি ওই মন্তব্য করার পর মুসলিমদের মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। এমনকি  সেই ঘটনার পর ভারতের বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ সংঘর্ষ হয়েছে। নূপুরকে গ্রেপ্তারের দাবি উঠেছে। এই ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে মুসলিম দেশগুলোতে। ফলে মুসলিম দেশগুলোর ক্ষোভ প্রশমনের জন্য সরকার নূপুর শর্মা ও আরেক বিজেপি নেতা নবীন কুমার জিন্দালকে বরখাস্তও করেন। 
 বিজেপি নেতাদের দেওয়া কটুক্তি মূলক বক্তব্যকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশ সহ বিভিন্ন দেশের সচেতন মুসলমানরা ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের ডাক দেন।এর পরিপ্রেক্ষিতে বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা  এই কর্মসূচি পালন করে।

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আহ্বান সকল মুসলমানদের ভারতীয় পণ্য বর্জন করা উচিত।এবং শিক্ষার্থীরা বিজেপির কটুক্তি মূলক বক্তব্য দেওয়া নেতাতের ফাঁসির দাবি করেন।এ সময় তারা ভারতের সরকারকে  বিজেপির নেতাদের এমন কটুক্তি কারিদের দ্রুত সময়ের মধ্যে বিচারের আওতায় আনার জন্য বলেন।

উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী মুহাম্মদ আনোয়ার হোসেনের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন ম্যানেজমেন্ট বিভাগের শিক্ষার্থী খাজা আহমেদ, সিএসই বিভাগের শিক্ষার্থী হাফেজ মো. সোলাইমান, ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থী শাহিন মাহমুদ, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী আমিনুল ইসলাম ও ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থী মাজহারুল মান্নান প্রমুখ।


মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, আমরা মনে করি,ভারতের কোনো একক গোষ্ঠী মহানবী (সাঃ) কে কটূক্তি করেনি। বরং এখানে ভারত সরকারের সরাসরি ইন্ধনে আমাদের নবীকে নিয়ে কটূক্তি করা হয়েছে। এ ধরণের দুঃসাহসের জন্য  মোদি সরকারকে বিশ্বের কাছে জবাবদিহি করতে হবে। একের পর এক ভারত সরকার ইসলাম বিদ্বেষী আচারণ করেই যাচ্ছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। দোষীদের আইনের আওতায় এনে কঠোর শাস্তি দাবি করছি।সাথে অসাম্প্রদায়িকতা বজায় রেখে ভারতে মুসলিমদের শান্তি-শৃঙ্খলভাবে বসবাস করার আহ্বানও জানান তারা।

বক্তারা আরো বলেন, মুসলিম অধ্যুষিত বাংলাদেশে ভারতের সাম্প্রদায়িকতা কখনো প্রশ্রয় পাবে না। ভারতের মুসলিমদের উপর অন্যায় ও ধর্মীয় অনুভূতির উপর আঘাত করা হলে কঠোর হস্তে দমন করা হবে।এ সময় বাংলাদেশ সরকারকে ভারতের সকল ধরণের পণ্য বর্জন করার আহ্বানও জানানো হয়।

এমআই


Somoy Journal is new coming online based newspaper in Bangladesh. It's growing as a most reading and popular Bangladeshi and Bengali website in the world.

যোগাযোগ:
এহসান টাওয়ার, লেন-১৬/১৭, পূর্বাচল রোড, উত্তর বাড্ডা, ঢাকা-১২১২, বাংলাদেশ
কর্পোরেট অফিস: ২২৯/ক, প্রগতি সরণি, কুড়িল, ঢাকা-১২২৯
ইমেইল: somoyjournal@gmail.com
নিউজরুম ই-মেইল : sjnewsdesk@gmail.com

কপিরাইট স্বত্ব ২০১৯-২০২২ সময় জার্নাল